Home / বিউটি টিপস / গরমে ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াতে ঘরোয়া ৬টি ফেসপ্যাক

গরমে ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াতে ঘরোয়া ৬টি ফেসপ্যাক

গরমকাল মানেই রোদের তীব্রতা। এই তীব্রতায় ত্বক (Skin) ধীরে ধীরে উজ্জ্বলতা হারিয়ে হয়ে ওঠে শুষ্ক ও নিষ্প্রাণ। তাই এ সময় ত্বকের জন্য প্রয়োজন বাড়তি যত্ন। তৈলাক্ত বা শুষ্ক সব ধরনের ত্বকেই গরমের সময় সমস্যা দেখা দেয়। প্রচুর ঘামের কারণে তৈলাক্ত ত্বক আরো বেশি অয়েলি হয়ে যায়। আবার বাইরের ধুলো-ময়লা আটকে গিয়েও তৈলাক্ত ত্বকে দেখা দিতে পারে ব্রণ (Acne)। এসব সমস্যার হাত থেকে রক্ষা পেতে ত্বকে ব্যবহার করুন ঘরোয়া কিছু ফেইস প্যাক (Face pack)। এই প্যাকগুলো গরমে ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়ানোর পাশাপাশি ত্বককে সুস্থ রাখতে সাহায্য করবে। চলুন জেনে নেওয়া যাক ঘরোয়া ফেইস প্যাকগুলো সম্পর্কে-ত্বকের উজ্জ্বলতা

গরমে ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াতে ঘরোয়া ৬টি ফেসপ্যাক

১) হলুদ ও অ্যালোভেরা জেলের ফেইস প্যাক
যা যা লাগবে
* অ্যালোভেরা জেল
* এক চিমটি হলুদের গুঁড়া
* ২ টেবিল চামচ দুধের সর বা দুধ

যেভাবে তৈরি করবেন
১) অ্যালোভেরা জেলের সাথে হলুদের গুঁড়া (Turmeric powder) এবং দুধের সর মিশিয়ে নিন।

২) প্যাকটি ফেইসে অ্যাপ্লাই করুন।

৩) ২০-৩০ মিনিট পর কুসুম গরম পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন।

কার্যকারিতা
অ্যালোভেরার ৯৮ শতাংশই পানি হওয়ায় গরমে এটি ত্বকে খুব ভালো কাজ করে। এতে আছে অ্যান্টি ব্যাকটেরিয়াল ও অ্যান্টি ফাঙ্গাল প্রোপার্টিজ। অ্যালোভেরা ব্যবহারে চোখের চারপাশের কালো দাগ, ব্রণের দাগ, বলিরেখা (Wrinkle) ও বয়সের ছাপ দূর হয়। সাথে ত্বকের উজ্জ্বলতাও বৃদ্ধি পায়।

২) মুলতানি মাটির ফেইস প্যাক
যা যা লাগবে
* ২ টেবিল চামচ মুলতানি মাটি (Multani soil)
* ২ টেবিল চামচ টমেটোর রস
* ১ টেবিল চামচ চন্দনের গুঁড়া
* এক চিমটি হলুদের গুঁড়া

যেভাবে ব্যবহার করবেন
১) মুলতানি মাটি, টমেটোর রস, চন্দনের গুঁড়া এবং হলুদের গুঁড়া একসাথে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করুন।

২) এই প্যাকটি ফেইসে অ্যাপ্লাই করে অপেক্ষা করুন ১০/১৫ মিনিট।

৩) শুকিয়ে গেলে হালকা রাব করে কুসুম গরম পানি দিয়ে ফেইস ধুয়ে নিন।

কার্যকারিতা
মুলতানি মাটি মুখের ব্রণ এবং ব্রণের দাগ (Acne scars) দূর করতে সাহায্য করে। হলুদের গুঁড়া এবং চন্দনের গুঁড়া ত্বকের কালো দাগ দূর করে উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি করে।

৩) টমেটো ও ব্রাইটেনিং মাস্ক এর ফেইস প্যাক
যা যা লাগবে
* একটি টমেটো
* ১ টেবিল চামচ স্কিন ক্যাফে ব্রাইটেনিং মাস্ক
* ২ ফোঁটা লেবুর রস (Lemon juice)

যেভাবে তৈরি করবেন
১) সবগুলো উপাদান ভালোভাবে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করুন।

২) প্যাকটি ত্বকে ব্যবহার করুন। ১০/১২ মিনিট পর শুকিয়ে গেলে ঠান্ডা পানি দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন।

কার্যকারিতা
গরমে ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে টমেটোর জুড়ি নেই। সানট্যান (Suntan) দূর করে ত্বকে এনে দেয় ন্যাচারাল গ্লো। আর মাস্কটি ত্বকে ব্রাইটেনিং ইফেক্ট দিবে। এই প্যাকটি সপ্তাহে দুইবার ব্যবহার করতে পারেন।

৪) হলুদ ও বেসন এর ফেইস প্যাক
যা যা লাগবে
* ১/২ বা ১ চা চামচ হলুদের গুঁড়া
* ৪ টেবিল চামচ বেসন
* দুধ অথবা পানি

যেভাবে তৈরি করবেন
১) হলুদের গুঁড়া ও বেসন একসাথে মিশিয়ে নিন।

২) এর সাথে দুধ অথবা পানি মেশান।

৩) এই মিশ্রণটি মুখে লাগিয়ে ১৫-২০ মিনিট অপেক্ষা করুন।

৪) তারপর পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

কার্যকারিতা
হলুদে কারকিউমিন, অ্যান্টি অক্সিডেন্ট ও অ্যান্টি ইনফ্ল্যামেটরি উপাদান রয়েছে, যা ক্ষতিকর ফ্রি রেডিক্যাল থেকে ত্বককে রক্ষা করে। এই ফেইস প্যাক (Face pack) ব্যবহারে ত্বকে কোলাজেন বৃদ্ধি পায়, ত্বক গ্লো করে ভেতর থেকে।

৫) শসা ও টক দইয়ের ফেইস প্যাক
যা যা লাগবে
* ১টি ছোট শসা
* ২/৩ টেবিল চামচ টকদই

যেভাবে তৈরি করবেন
১) শসা কুঁচি করে এর সাথে টক দই (Sour yogurt) মেশান।

২) এই প্যাকটি ত্বকে রাখুন ৫-৭ মিনিট। এরপর ঠান্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

কার্যকারিতা
শসাতে থাকা অ্যান্টি অক্সিডেন্ট নিষ্প্রাণ ত্বকে প্রাণ নিয়ে আসে। এই প্যাকটি রোদে পোড়া দাগ দূর করে এবং ত্বককে নরম ও কোমল করে তোলে। অতিরিক্ত তেল অপসারণ করে ত্বকের স্বাভাবিক আর্দ্রতা ধরে রাখতে সাহায্য করে এই প্যাক।

৬) দুধ ও বেসন এর ফেইস প্যাক
যা যা লাগবে
* ২ চা চামচ দুধ
* ১ চা চামচ মধু (Honey)
* ১ চা চামচ বেসন

যেভাবে তৈরি করবেন
১) সবগুলো উপাদান একসাথে মিশিয়ে প্যাক তৈরি করুন।

২) প্যাকটি ত্বকে ব্যবহার করে ২০ মিনিট অপেক্ষা করুন।

৩) শুকিয়ে গেলে কুসুম গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

কার্যকারিতা
ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে দুধ প্রাচীনকাল থেকে ব্যবহার হয়ে আসছে। দুধ ও মধু ত্বককে উজ্জ্বল করার পাশাপাশি ত্বকের কালো দাগ দূর করতে সাহায্য করে। সপ্তাহে দুইবার ব্যবহার করতে পারেন এই প্যাকটি।

টিপস
১) গরমে ত্বকের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধিতে পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি পান করুন। ১০-১২ গ্লাস পানি প্রতিদিন পান করা উচিত।

২) ঘরের বাইরে গেলে অবশ্যই সানস্ক্রিন (Sunscreen) ব্যবহার করুন।

৩) গরমকালে ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার বাদ দেওয়া যাবে না। এ সময় লাইট ওয়েটের অথবা জেল বেইজড ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করুন।

৪) নিয়মিত ত্বকে ক্লেনজিং এবং সপ্তাহে অন্তত একদিন এক্সফোলিয়েট করুন।

৫) ত্বক সুস্থ রাখার জন্য বিভিন্ন ফলের রস (Fruit juice) পান করুন।

সুস্থ থাকুন, নিজেকে এবং পরিবারকে ভালোবাসুন। আমাদের লেখা আপনার কাছে কেমন লেগেছে এবং আপনার যদি কোনো প্রশ্ন অথবা মতামত থেকে থাকে তবে নিচে কমেন্ট করে আমাদের জানাতে পারেন। আর আপনার বন্ধুদের কাছে পোস্টটি পৌঁছে দিতে শেয়ার করুন। সম্পূর্ণ পোস্টটি পড়ার জন্য আপনাকে অনেক ধন্যবাদ।

Check Also

বয়সের ছাপ

চেহারায় বয়সের ছাপ কমানোর ৫টি ঘরোয়া উপায়

চেহারায় বয়সের ছাপ কমানোর ৫টি ঘরোয়া উপায়। বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে আমাদের ত্বকে কিছু পরিবর্তন ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *