Home / স্বাস্থ্য টিপস / জনপ্রিয় তবে ঘুমের জন্য ক্ষতিকর যে সব খাবার

জনপ্রিয় তবে ঘুমের জন্য ক্ষতিকর যে সব খাবার

ঘুমের বারোটা বাজিয়ে দিতে পারে বিভিন্ন ধরনের খাবার(Food)। প্রচণ্ড ক্লান্ত, শুয়েও পড়েছেন রাতে ঘুমানোর জন্য। তবে এপাশ ওপাশ করে সময় গড়িয়ে যাচ্ছে। ঘুম আসছে না কিছুতেই। এভাবে রাত অনেকটা গড়িয়ে গেলেও সকালে সময়মতোই উঠতে হবে। ফলে অপূর্ণ ঘুম(Incomplete sleep) নিয়ে দিনের শুরু হল। রাতে ঘুমটা কেমন হবে তা শুধু সারাদিনের খাটনির ওপর নির্ভর করে তা কিন্তু নয়। সারাদিন কী খেলেন সেটার ওপরেও ঘুম নির্ভর করে অনেকটা।খাবার

জনপ্রিয় তবে ঘুমের জন্য ক্ষতিকর যে সব খাবার

প্রক্রিয়াজাত কার্বোহাইড্রেট
প্রক্রিয়াজাত ‘কার্বোহাইড্রেট’(Carbohydrate) শুধু যে কোমরের পরিধি বাড়ায় তা নয়, ঘুমের ওপর এর প্রভাব প্রবল। ইটদিস ডটকম ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদনে ‘দ্য আমেরিকান জার্নাল অফ ক্লিনিকাল নিউট্রিশন’য়ে প্রকাশিত গবেষণার উদ্ধৃতি দিয়ে জানানো হয়, শর্করা বেশি এরকম খাবার ঘুমের ব্যঘাত ঘটায়।

২০২০ সালে ‘উইমেন্স হেল্থ ইনিশিয়েটিভ অবজারভেশনাল সার্ভে’র অংশ হিসেবে ৭৭,৮৬০ জন রজঃবন্ধ হওয়া নারীকে নিয়ে পর্যবেক্ষণ দেখা যায়, ‘গ্লাইসেমিস ইনডেক্স’য়ের মান যে খাবারগুলোর বেশি সেই খাবারগুলো যারা বেশি খান, সঙ্গে থাকে চিনি(Sugar) ও প্রক্রিয়াজাত শষ্য, তাদের অধিকাংশই অনিদ্রা বা ‘ইনসোমনিয়া’তে আক্রান্ত।

ঝাল ও মসলাদার খাবার
নির্ভেজাল ঘুম চাইলে রাতের খাবারে ঝাল ও মসলাদার খাবার(Spicy food) খাওয়া থেকে বিরত থাকা উচিত। ‘ইন্টারন্যাশনাল জার্নাল অফ সাইকোপ্যাথোলজি’তে প্রকাশিত এই বিষয়ক এক গবেষণায় ছয়জন স্বাস্থ্যবান পুরুষ অংশ নেন।

গবেষণায় দেখা যায়, যারা রাতের খাবারে ‘তাবাস্কো সস’ কিংবা ‘মাস্টার্ড’(Mustard) খেয়েছেন তাদের ওই রাতে ঘুমাতে দেরি হয়েছে। ঘুম বিশ্লেষণ করে দেখা যায় তাদের গভীর ঘুমের মাত্রাও কমেছে। ‘তাবাস্কো সস’ আর ‘মাস্টার্ড’ দুটোই ঝাঁঝাঁলো স্বাদের।

ভাজাপোড়া
এই খাবারগুলো যতই মুখরোচক হোক না কেনো তা যে স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর সেটা সবারই জানা। আর গবেষণা বলে সেগুলো ঘুমেরও ক্ষতি করছে। ২০১৬ সালের একটি গবেষণা হয় সেই বিষয়ে। ২৬ জন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষ অংশ নেন তাতে, তাদের বয়স ছিল ৩০ থেকে ৪৫ বছরের মধ্যে। আর তারা গড়ে সাত থেকে নয় ঘণ্টা ঘুমান নিয়মিত।

তাদের পর্যবেক্ষণ করে দেখা যায়, খাদ্যাভ্যাস উচ্চমাত্রায় ‘স্যাচুরেইটেড ফ্যাট’(Saturated fat) থাকলে ঘুম কমে যায়। সঙ্গে ঘুম ভেঙে যাওয়া এবং ঘুমের মধ্যে অস্থিরতা দেখা দেওয়ার ঘটনাও বেশি। ‘জার্নাল অফ ক্লিনিকাল স্লিপ মেডিসিন’য়ে এই গবেষণা প্রকাশিত হয়।

চকলেট
চা-কফি পান করে যে ঘুম কাটানো হয় তার মূল হোতা হল ‘ক্যাফেইন’(Caffeine), যা চকলেটও থাকে। তবে পরিমাণে কম। তবে রাতে ঘুমানোর আগে চকলেট কিংবা তা দিয়ে তৈরি কোনো খাবার খাওয়া ঘুমের ক্ষতি করতে পারে। বিশেষ করে ‘ডার্ক’ চকলেট যাতে ‘ক্যাফেইন’য়ের মাত্রা বেশি থাকে।

২০১৩ সালের এক গবেষণা, যা প্রকাশিত হয় ‘জার্নাল অফ ক্লিনিকাল স্লিপ মেডিসিন’য়ে, তাতে বলা হয়, রাতে ঘুমানো ঠিক তিন ঘণ্টা আগে এমনকি ছয় ঘণ্টা আগেও যদি ৪শ’ মি.লি. গ্রাম ‘ক্যাফেইন’(Caffeine) শরীরে প্রবেশ করে, তা ঘুমের উল্লেখযোগ্য মাত্রায় ব্যাঘাত ঘটায়।

মদ্যপান
রাতে ভালো ঘুম ভালো হবে ভেবে যারা এক চুমুক মদ(Wine) পান করছেন তাদের ধারণাটা ভুল। হয়ত সাময়িক ঘুমভাব আসবে, তবে ঘুমের মান কমবে বহুগুন। ‘নিউরোসাইকোফার্মাকোলজি’ শীর্ষক সাময়িকীতে প্রকাশিত হয় এই বিষয়ক গবেষণা। ২১ থেকে ৪৫ বছর বয়সি ২০ জন স্বাস্থ্যবান মানুষকে নিয়ে করা এই গবেষণায় দেখা যায় মদ্যপান ঘুমের সময় ‘র‌্যাপিড আই মুভমেন্ট (আরইএম) বা চোখের মনির নড়াচড়ার মাত্রা কমিয়ে দেয়।”

সাধারণত ঘুমিয়ে পড়ার নব্বই মিনিটের মধ্যে ‘আরইএম স্লিপ’ পর্যায় পৌঁছায়। সাধারণত গভীর বা স্বাস্থ্যকর ঘুমের অভ্যাসের লক্ষণ এটি।

সুস্থ থাকুন, নিজেকে এবং পরিবারকে ভালোবাসুন। আমাদের লেখা আপনার কেমন লাগছে ও আপনার যদি কোনো প্রশ্ন থাকে তবে নিচে কমেন্ট করে জানান। আপনার বন্ধুদের কাছে পোস্টটি পৌঁছে দিতে দয়া করে শেয়ার করুন। পুরো পোস্টটি পড়ার জন্য আপনাকে অনেক ধন্যবাদ।

Check Also

নখ

নখ খেলে শরীরের কি ক্ষতি হয় জানেন কী?

মাত্র খেয়ে উঠেছেন সোহাগ। একটু বিশ্রামের জন্য বসেছেন সোফায়। সামনে চলছে টিভি। এরপরও মুখে চলে ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *