Home / চুলের যত্ন / চুল লম্বা করা তেলের সন্ধান দিলেন মালাইকা

চুল লম্বা করা তেলের সন্ধান দিলেন মালাইকা

নারী-পুরুষ সবার কাছেই চুল(Hair) অনেক গরুত্বপূর্ণ। চুল ছাড়া সৌন্দর্য ম্লান হয়ে যায়! বিশেষ করে লম্বা ও ঘন চুল(Hair) সব নারীরাই পছন্দ করেন। তবে চুলের সঠিক যত্ন নেওয়ার মাধ্যমেই তা লম্বা ও ঘন করে তোলা সম্ভব। বাজারে অনেক ধরনের হেয়ার গ্রোথ অয়েল(Hair Growth Oil) আছে, যেগুলো ব্যবহার করা চুলের স্বাস্থ্যের জন্য মোটেও ভালো নয়। এজন্য ভরসা রাখুন বিভিন্ন প্রাকৃতিক তেলের উপর।চুল

চুল লম্বা করা তেলের সন্ধান দিলেন মালাইকা

জানেন কি? বলিউডের তারকারাও চুলের যত্নে প্রাকৃতিক বিভিন্ন তেলের উপরই ভরসা রাখেন। সম্প্রতি মালাইকা অরোরা তার চুলের যত্নে সিক্রেট অয়েল সম্পর্কে তার ভক্তদের জানিয়েছেন।

>> নারকেল তেল(Coconut oil) চুলের জন্য এক জাদুকরী উপাদান। চুলের গোড়া শক্ত করার পাশাপাশি মাথার ত্বকে পুষ্টি জোগায় এ তেল। এটি চুল(Hair) ভাঙ্গাও কমায় এবং চুলকে কোমল এবং ঝলমলে করে।

>> ত্বক এবং চুলের যত্নে জলপাই তেল অনন্য। এতে একাধিক ভিটামিন আছে, যা চুলের প্রাকৃতিক কেরাটিন ধরে রাখতে সহায়তা করে। নিয়মিত চুলে অলিভ অয়েল(Olive oil) ব্যবহারের ফলে আপনার চুল দ্রুত লম্বা ও ঘন হয়ে উঠবে।।

>> চুলের বৃদ্ধিতে ক্যাস্টর অয়েল ম্যাজিকের মতো কাজ করে। প্রাচীনকাল থেকেই চুলের যত্নে ক্যাস্টর অয়েল(Castor oil) ব্যবহৃত হয়ে আসছে। চুল(Hair) বৃদ্ধির পাশাপাশি প্রাকৃতিকভাবে মাথার ত্বকের আর্দ্রতা বজায় রাখে এবং খুশকিও দূর করে ক্যাস্টর অয়েল।

>> মেথি বীজে অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি এবং ক্ষত নিরাময়ের বৈশিষ্ট্য আছে। যা খুশকিসহ স্ক্যাল্পের যাবতীয় সমস্যা থেকে রক্ষা করে। মাথার ত্বকে চুলকানি রোধের সেরা দাওয়াই হলো মেথি।

>> কারি পাতায় থাকে বিটা ক্যারোটিন(Carotene)। চুলের ক্ষতি নিয়ন্ত্রণ করে এবং চুলের বৃদ্ধি বাড়ায়। এতে অ্যামিনো অ্যাসিড বেশি থাকায় চুলের ফলিকগুলো আরও শক্তিশালী হয়ে ওঠে।

মালাইকা অরোরা যেভাবে তার চুলের যত্নে এসব প্রাকৃতিক উপাদানগুলো ব্যবহার করেন, তা জেনে নিন-

মালাইকা তার ইনস্টাগ্রামে জানিয়েছেন, ‘খাঁটি নারকেল তেল, ক্যাস্টর অয়েল ও অলিভ অয়েল(Olive oil) হলো চুলের জন্য সবচেয়ে ভালো উপাদান। সবগুলো তেল সমপরিমাণ মিশিয়ে তার মধ্যে মেথির গুঁড়ো ও কারি পাতা বাটা মিশিয়ে নিলেই তৈরি হয়ে যাবে চুল(Hair) লম্বা ও ঘন করার ম্যাজিক টোটকা।’

‘এরপর চুলের গোড়া থেকে আগা পর্যন্ত এ প্যাকটি ব্যবহার করে শুকিয়ে যাওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করুন তারপর ভালো করে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে ২-৩ দিন এ উপায়ে চুলের যত্ন(Hair care) নিলেই ফলাফল দেখে চমকে উঠবেন!’

সুস্থ থাকুন, নিজেকে এবং পরিবারকে ভালোবাসুন। আমাদের লেখা আপনার কেমন লাগছে ও আপনার যদি কোনো প্রশ্ন থাকে তবে নিচে কমেন্ট করে জানান। আপনার বন্ধুদের কাছে পোস্টটি পৌঁছে দিতে দয়া করে শেয়ার করুন। পুরো পোস্টটি পড়ার জন্য আপনাকে অনেক ধন্যবাদ।

Check Also

চুল

ঘরে তৈরি গ্রিন টি ও অ্যালোভেরার শ্যাম্পুতেই চুল হবে ঝলমলে

আশা করি সবাই ভাল আছেন। আজ আপনাদের মাঝে অরেকটি আর্টিকেল নিয়ে হাজির হলাম। আজ আপনাদের ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *